সিরাজগঞ্জে পারভেজ রানার ৯ মাসেও সন্ধান মিলেনি

আব্দুর রহমান, সিরাজগঞ্জঃ সিরাজগঞ্জে নিখোঁজ কলেজ ছাত্র পারভেজ রানা ১৯, সন্ধ্যান মিলেনি ৯ মাসেও। মামলা আসামীরা জামিনে থাকলওে অনেক আসামী এখনো গ্রেফতার হয়নি বলে অভিযোগ নিখোজ রানার পরিবারের।সন্তানের প্রতিক্ষায় এখনো নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছেন রানার মা। পরিবারের সবাই তার প্রতিক্ষায় থাকলেও ৯ মাসেও তার খোজ বের করতে পারে নি প্রশাসন। তাকে উদ্ধারের দাবিতে নানান কর্মসুচী পালন করেছে তার বন্ধু বান্ধব ও সহপাঠিরা। প্রশাসন সেই সময় তাকে উদ্ধারের আশ্বাষ দিলেও এখনো তার কোন কুল কিনারা নেই। সদর থানা থেকে মামলা পিবি অই এ স্থানান্তর করা হয়েছে।পরিবারের অভিযোগ মামলার, গত ২৮ জানুয়ারি বিকেলে অপহৃত পারভেজ রানাকে তার বন্ধু নয়ন মোবাইল ফোন করে পাঁচঠাকুরী মোবারক হোসেনের বাড়িতে ডেকে নিয়ে যায়। সেখানে আগে থেকেই আরো আট দশজন যুবক অবস্থান করছিলো। রাত ৮টার দিকে তাদের মধ্যে একজন হঠাৎ চিৎকার দিয়ে সবাইকে পালিয়ে যেতে বলেন । সবাই দৌড়ে পালিয়ে যায়। এর পর থেকে পারভেজ রানাকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি । পরে তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটি আসামি মোবারক হোসেনর বাড়ির পাশে বাঁধের উপর থেকে উদ্ধার করে পুলিশ তবে নিখোজ রানাকে এখ নপর্যন্ত উদ্ধার করতে পারেনি।এ ঘটনার পর ১ ফেব্রুয়ারি শুক্রবার রাতে রানার নানা গাজী আব্দুল কুদ্দুস সরকার বাদী হয়ে ৫জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ৫-৬জনকে আসামি করে থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মামলার এজাহারভুক্ত ৪ আসামি সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার পারপাচিল গ্রামের আজাদ তালুকদারের ছেলে নয়ন১৯, আকবর শেখের ছেলে রাজন ৩০, পাঁচঠাকুরী গ্রামের দুদু শেখের ছেলে মোবারক ৩৫,ও ফরজ আলীর ছেলে লুৎফরকে ১৯, গ্রেফতার করে। এসময় রানার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটি আসামি মোবারকের বাড়ির পাশে বাঁধের ওপর থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। নিখোঁজ কলেজছাত্র পারভেজ রানা সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার ভেওয়ামারা গ্রামের বাবুল আক্তারের ছেলে।