পালাতে হলো নয়ন বন্ডের মাকে

সংবাদদাতা : পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত চাঞ্চল্যকর রিফাত হত্যা মামলার প্রধান আসামি সাব্বির হোসেন নয়ন বন্ডের মরদেহ দাফন করতে দেয়নি তার আদিবাড়ি পটুয়াখালীর দশমিনা এলাকাবাসী। তার দূর সম্পর্কের এক মামা নয়নকে দাফন করে বরগুনা সদর উপজেলার সোনারবাংলা গ্রামে। বরগুনা সরকারি কলেজের পিছনে নতুন বাড়ি করে থাকতেন মায়ের সঙ্গে। আজ সন্ধ্যার পর থেকে পলাতক তার মা। বাবা মারা গেছেন আগেই। এলাকাবাসী এখন নয়নের মাকে নানা কারণে দোষারোপ করছে।

মঙ্গলবার (২ জুলাই) বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে হস্তান্তরের পর নয়নের মরদেহ নিয়ে বাড়িতে যাওয়ার সময় খবর আসে দশমিনায় নয়নকে দাফন করতে দেবে না এলাকাবাসী।

মরদেহ হস্তান্তরকারী বরগুনার থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাহিন বলেন, নয়নের মরদেহ তার মামা মিজানুর রহমান গ্রহণ করেন। পরে অ্যাম্বুলেন্সে করে পটুয়াখালী নেওয়া শুরু করলে সেখান থেকে খবর আসে খুনির মরদেহ সেখানে দাফন করতে দেবে না এলাকাবাসী। পরে মিজানুর নিজের বাড়িতে দাফন করার সিদ্ধান্ত নেন।

প্রকাশ্য দিবালোকে স্ত্রীর সামনে রিফাত শরীফকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনার মামলার প্রধান আসামি নয়ন বন্ড পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন। হত্যাকাণ্ডের পর থেকেই পলাতক ছিলেন তিনি। মঙ্গলবার ভোরে জেলা সদরের বুড়িরচর ইউনিয়নের পুরাকাটা ফেরিঘাট এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।