কুষ্টিয়ায় ‘ইউনানি ওষুধ’ সেবনে শিশুসহ ২ জনের মৃত্যু

দৈনিক এই আমার দেশ দৈনিক এই আমার দেশ

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : কুষ্টিয়ার মিরপুরে ‘ইউনানি ওষুধ’ সেবন করে শিশুসহ দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। রোববার (৩ ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাতে উপজেলার বহলবাড়ীয়া ইউনিয়নের খাড়াড়া এলাকায় দু’জনের মৃত্যু হয়।

এ দু’জন হলেন- বহলবাড়ীয়া খাড়াড়া এলাকার নুর মহাম্মদ (৫০) ও একই এলাকার নবাব আলীর মেয়ে শামীমা (৯)। এই ওষুধ খেয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন নবাব আলী।

স্থানীয়রা জানায়, নবাব আলীর বাড়িতে রোববার রাতে টেলিভিশন দেখতে যান নুর মহাম্মদ। এসময় কাশির জন্য নবাব আলী নবীন ল্যাবরেটরির মেরী গোল্ড নামক ইউনানি সিরাপ সেবন করে। এসময় নুর মহাম্মদ, ও নবাব আলীর মেয়ে শামীমাও একই ওষুধ সেবন করে। এরপরে রাত সাড়ে ১০টার দিকে শামীমা অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। ওষুধটি ২ মাস আগে কিনে রেখেছিলেন নবাব আলী।

ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মিজানুর রহমান জানান, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই মেয়েটি মারা গিয়েছিলো। মেরী গোল্ড নামক ইউনানি সিরাপ সেবর করেছিল সে।

এদিকে মধ্যরাতে নুর মহাম্মদও অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনিও মারা যান।

অন্যদিকে একই রাতে অসুস্থ হয়ে হয়ে পড়েন শামিমার বাবা নবাব আলী। তাকে দ্রুত ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার অবস্থাও আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে।

মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, খবর পেয়ে পুলিশ দু’জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে।

তিনি আরও জানান, ইউনানি ওষুধটি মেয়াদোত্তীর্ণ ছিল না। তবে গতরাতের আগেও ওষুধটি ব্যবহার করা হয়েছিল কিনা সে বিষয়ে তিনি কিছু বলতে পারেননি।